Search This Blog

Theme images by MichaelJay. Powered by Blogger.

Blog Archive

Monday, December 12, 2016

প্রথম দৃশ্য

প্রথম দৃশ্য


(শ্রীগৌরাঙ্গ-বিষ্ণুপ্রিয়ার বিবাহ-বাসর। সবেমাত্র কন্যা সম্প্রদান হইয়া গিয়াছে। বিপুল জনগণের (কন্যাপক্ষ ও বরপক্ষের) মুহুর্মুহু আনন্দ-ধ্বনির সহিত অজস্র যন্ত্রের মধুর সংগীত ও বাদ্যধ্বনি শুনা যাইতেছে। হুলু ও শঙ্খধ্বনির যেন বিরাম নাই।)



জনৈকা কন্যাপক্ষীয় দাসী :

বর কনেকে এখন বাসর-ঘরে নিয়ে এসো না গো! কন্যা সম্প্রদান তো কখন হয়ে গেছে। ওদের ছাদনাতলায় ধরে রেখে যেন সব ঠাকুর দেখছেন।



বরপক্ষীয় জনৈক লোক :

হ্যাঁ গো ঠাকরুন! আমরা ঠাকুরই দেখছি, এই যুগল-মিলন তো তোমরা মেয়ের দল সারারাত ধরে প্রাণ ভরে দেখবে আর আমরা বেচারা পুরুষের দল বাইরে বসে কড়িকাঠ গুনব।



অন্য আর একজন :

বেঁচে থাক দাদা। জোর বলেছিস। যুগল-মিলনের এই গোলোক- ধামে ঠাকুর এক-চোখোমি করতে পারবে না। আর করলেও আমরা তা মানব কেন। আধাআধি বখরা করো – রাজি আছি। অর্ধেক রাত আমরা দেখব – অর্ধেক রাত তোমাদের ছেড়ে দেব।



অন্য আর একজন বরপক্ষীয় লোক :

হেরে গেছে! হেরে গেছে। আমাদের বর বড়ো – বর বড়ো!



কন্যাপক্ষীয় দুইজন :

কক্‌খনো না, কনে বড়ো। এই আমরা তুলে ধরলাম কনেকে।



বরপক্ষীয় দুইজন :

পিঁড়ি যতই উঁচু কর না দাদা, আমাদের বরের নাগাল পাচ্ছ না-পুরো পাঁচ হাত লম্বা বর।



যাদব :

কাকিমা মানা করছেন, তোমরা দিদিকে এত উঁচুতে তুলো না, দিদি পড়ে যাবে।



কন্যাপক্ষীয় দাসী :

ওগো, মা ঠাকরুনরা বলছেন, তোমাদের বরই বড়ো। এখন ওদের বাসর-ঘরে আনতে ছেড়ে দাও।



বরপক্ষীয় লোক :

হেরে গেছে! কনে হেরে গেছে! দুয়ো! দুয়ো!



যাদব :

(মুখ ভ্যাঙচাইয়া) হেঁরেঁ গেঁছেঁ। হেঁরেঁ গেঁছেঁ। কখ্‌খনো না, দিদি বড়ো, জামাইবাবু ছোটো!



বরপক্ষীয় লোক :

তোমরা যতই চ্যাঁচাও, আমরা যুগল-মিলনের গান না গেয়ে ছাড়ছিনে। কনেকে বরের বাম-পাশে দাঁড় করাও, আমরা দেখি, যুগল-মিলনের গান গাই তারপর, – না কি বল বুদ্ধিমন্ত!



বুদ্ধিমন্ত :

নিশ্চয়! তাহলে মুকুন্দ তুমিই গানটা গাও আর আমরা ধুয়া ধরি।


  


(মুকুন্দের গান)


একী অপরূপ যুগলমিলন হেরিনু নদিয়া-ধামে


বিষ্ণুপ্রিয়া লক্ষ্মী যেন রে গোলোক-পতির বামে॥


একী অতুলন যুগল-মুরতি


যেন শিব-সতী হর-পার্বতী


জনক-দুহিতা সীতা দেবী যেন বেড়িয়া রয়েছে রামে॥


গৌরের বামে গৌর-মোহিনী


(যেন) রতি ও মদন চন্দ্র-রোহিণী


(তোরা) দেখে যারে আজ মিলন-রাসে


  যুগল রাধা শ্যামে॥


  


(হুলুধ্বনি, শঙ্খধ্বনি, উভয়পক্ষীয় লোকের আনন্দ-চিৎকার, মধুর বাদ্যধ্বনি ইত্যাদি)

No comments:
Write comments

Interested for our works and services?
Get more of our update !